অনুচ্ছেদঃ কম্পিউটার

play icon Listen to this article

অনুচ্ছেদ লিখন

কম্পিউটার


কমপিউটার (Computer) শব্দটির উৎপত্তি ল্যাটিন কমপুটেয়ার (Computare) থেকে, যার ইংরেজি অর্থ কম্পিউট (Compute) বা গণনা করা। সে হিসেবে কমপিউটারের অর্থ গণনাকারী যন্ত্র। কিন্তু, বর্তমানে কম্পিউটার শুধু গণনাকারী যন্ত্র নয়। বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে আশ্চর্যজনক আবিষ্কার হলাে Computer. কমপিউটার একটি, ইলেকট্রনিক যন্ত্র যা মানুষের দেওয়া তথ্য যুক্তিসঙ্গত নির্দেশের ভিত্তিতে অতি দ্রুত এবং নির্ভুলভাবে গণনার কাজ করে, তার সঠিক ফলাফল প্রদান করতে পারে।

কমপিউটারের ব্যাপক ব্যবহারের মধ্যে রয়েছে- লেখাপড়া করা, মুদ্রণ করা, তথ্য সংরক্ষণ করা, গান শােনা, সিনেমা দেখা, খেলা করা,’ টেলিফোন করা, দেশ-বিদেশের সাথে তথ্য আদান-প্রদান করা ইত্যাদি। ব্যাপক ব্যবহারের ফলে আধুনিক জীবনে সবচেয়ে জরুরি যন্ত্র এটি। বৈদ্যুতিক কমপিউটারগুলাে দু’ধরনের হয়ে থাকে। (১) এনালগ, (২) ডিজিটাল।

এনালগ কমপিউটার ফিজিক্যাল গুণাবলি নিয়ন্ত্রণ করে এবং ডিজিটাল কমপিউটারগুলাে সংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করে। মূলত কমপিউটার মানুষের মস্তিষ্কের বিকল্প হিসেবে মানব কল্যাণে অনেক কাজ করে চলছে এবং মানুষের শক্তি ও সময়ের অপচয় রােধে সহায়ক ভূমিকা পালন করছে। ঘরের, বাজারের হিসাব বা বাচ্চাদের গেম থেকে শুরু করে দেশের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে কাজ করে। তাই কমপিউটার আমাদের ব্যক্তিগত জীবন থেকে শুরু করে জাতীয় জীবনে অপরিহার্য হয়ে উঠেছে।

What’s your Reaction?
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0
+1
0

আপনার মতামত জানানঃ

সাবস্ক্রাইব করুন...    OK No thanks