বিদ্যালয়ের সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ সম্পর্কে একটি প্রতিবেদন তৈরি কর।

play icon Listen to this article

বিদ্যালয়ের সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ সম্পর্কে একটি প্রতিবেদন তৈরি কর।


অথবা, মনে কর, তুমি শিমুলতলী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির একজন ছাত্র হীরা। তােমার বিদ্যালয়ের ‘বার্ষিক সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ’ উপলক্ষে আয়ােজিত অনুষ্ঠানমালার বর্ণনা দিয়ে প্রধান শিক্ষকের নিকট একটি প্রতিবেদন লেখ।
অথবা, তােমার বিদ্যালয়ের বার্ষিক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের বিবরণ তুলে ধরে প্রধান শিক্ষ বরাবর একটি প্রতিবেদন রচনা কর।

অথবা, মনে কর, তােমার নাম ফাহিম। তােমার বিদ্যালয়ে বার্ষিক সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সন্তাহ’ উপলক্ষে আয়ােজিত অনুষ্ঠানমালার বর্ণনা দিয়ে প্রধান শিক্ষকের নিকট একটি প্রতিবেদন লেখ।

অথবা, তােমার বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযােগিতার বিবরণ দিয়ে একটি প্রতিবেদন তৈরি কর।
অথবা, মনে কর, তুমি মাসুম। তুমি ধামতী হাইস্কুলের একজন ছাত্র। তােমার স্কুলে অনুষ্ঠিত ক্রীড়া প্রতিযােগিতার উপর প্রধান শিক্ষক বরাবর একটি প্রতিবেদন লেখ।

২৫ জুলাই, ২০১৯
প্রধান শিক্ষক।
লাইসিয়াম স্কুল
ময়মনসিংহ।

বিষয় : বার্ষিক সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ সম্পর্কিত প্রতিবেদন।

জনাব,
সম্প্রতি সমাপ্ত বিদ্যালয়ের সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ/বার্ষিক ক্রিড়া প্রতিযােগিতা সম্পর্কে আপনার অবগতির জন্য একটি প্রতিবেদন পেশ করছি-

১. গত ১৫ জুলাই থেকে ২১ জুলাই, ২০১৯ তারিখ পর্যন্ত বিদ্যালয়ের বার্ষিক সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সপ্তাহ/বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযােগিতা উদযাপিত হয়েছে। এতে যে সমস্ত বিষয়ে প্রতিযােগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে তা হলাে- বিতর্ক, উপস্থিত বক্তৃতা, নির্ধারিত বক্তৃতা, কবিতা আবৃত্তি, গল্প বলা, রবীন্দ্র সংগীত, নজরুল গীতি, আধুনিক গান, পল্লীগীতি ও ভাওয়াইয়া। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করেছে উচ্চ লাফ, লম্বা লাফ, লৌহ গােলক নিক্ষেপ, বর্ষা নিক্ষেপ, সাইকেল দৌড়, ভার উত্তোলন ও দড়ি লাফ।

বিদ্যালয়ের সকল শ্রেণি থেকে ছাত্রছাত্রীরা এসব প্রতিযােগিতায় অংশগ্রহণ করে। সর্বসাকুল্যে এই প্রতিযােগিতায় সকল বিষয়ে অংশগ্রহণকারী প্রতিযােগীর সংখ্যা ছিল ৭০ জন। প্রতিদিন প্রথম আড়াই ঘণ্টা নিয়মিত ক্লাসের পর প্রতিযােগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকল ছাত্রছাত্রী ও শিক্ষক এই প্রতিযােগিতায় উপস্থিত থেকে অংশগ্রহণকারীদের উৎসাহিত করেন।

২. প্রতিযােগিতায় প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারীদের পুরস্কৃত করার ব্যবস্থা ছিল। পুরস্কার হিসেবে বাছাইকৃত ও প্রয়ােজনীয় বইপুস্তক প্রদান করা হয়েছে। পুরস্কারের মােট মূল্যমান ছিল পাঁচ হাজার টাকা। প্রতিযােগিতায় শ্রেষ্ঠ হয়েছে দশম শ্রেণির ছাত্র সহিদুল ইসলাম ও দ্বিতীয় শ্রেষ্ঠ হয়েছে নবম শ্রেণির ছাত্রী তানিয়া তাসমিন। তাদেরকে বিশেষভাবে পুরস্কৃত করা হয়েছে।

৩. অনুষ্ঠান উদ্বোধন করেছিলেন বরেণ্য কবি আল মাহমুদ এবং পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে পুরস্কার বিতরণ করেন প্রখ্যাত কবি ও গবেষক ডক্টর আশরাফ সিদ্দিকী।সাহিত্য-সংস্কৃতি ও ক্রীড়া ক্ষেত্রে বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের বিপুল উৎসাহ এতে প্রতিফলিত হয়েছে। দর্শকদের উপস্থিতি এবং সুশৃঙ্খলার সাথে অনুষ্ঠানটি খুবই সাফল্য মন্ডিত হয়েছে।

শাহরিয়ার নাফিস সিফাত
প্রতিবেদক
দশম শ্রেণি, রােল নং ২
লাইসিয়াম স্কুল

What’s your Reaction?
+1
43
+1
20
+1
12
+1
6
+1
5
+1
3

আপনার মতামত জানানঃ